মঙ্গলবার, ০৯ মার্চ ২০২১, ০৬:৫৪ পূর্বাহ্ন
শীর্ষ সংবাদ
বিএনপির ঐতিহাস ৭ই মার্চ পালন মুক্তিযুদ্ধের ইতিহাস বিকৃতির আরেকটা প্রচেষ্টা মাত্র বাক স্বাধীনতার নামে দেশবিরোধী চক্রের গুজব সন্ত্রাস লিঙ্গ সমতায় বাংলাদেশ এখন রোল মডেল : আরও যোগ্য হওয়ার পরামর্শ প্রধানমন্ত্রীর জাতিসংঘের প্রতিটি ভাষায় ৭ মার্চের ভাষণ : বাংলাদেশে ডাকটিকিট অবমুক্ত বঙ্গবন্ধু হত্যাকাণ্ডের চক্রান্তের স্ক্র্যাপ ও খুনিদের পুনর্বাসন ঐতিহাসিক ৭ মার্চের ৫০ বছর কালজয়ী এই ভাষণ বিশ্বের শোষিত, বঞ্চিত ও মুক্তিকামী মানুষকে সবসময় প্রেরণা যুগিয়ে যাবে দীর্ঘদিন পর গণভবনের বাইরে এসে বঙ্গবন্ধুর প্রতিকৃতিতে প্রধানমন্ত্রীর শ্রদ্ধা সফল তিন নেতার একজন বাংলাদেশের প্রধানমন্ত্রী ৭ মার্চের ভাষণ : পটভূমি ও তাৎপর্য

মালিতে বাংলাদেশ সেনাবাহিনীর অপারেশনাল সাফল্য

সুভাষ হিকমত
আপডেট : শনিবার, ৩০ জানুয়ারী, ২০২১

পশ্চিম আফ্রিকার দেশ মালিতে শান্তিরক্ষী মিশনে নিয়োজিত বাংলাদেশ সেনাবাহিনী আভিযানিক সাফল্য লাভ করেছে। গত ২৭ জনুয়ারি আইইডি ও গুলিবর্ষণের মাধ্যমে সংঘবদ্ধ মিশ্র আক্রমণ পরিচালনা করে সন্ত্রাসী হামলা প্রতিরোধ করেন বাংলাদেশি শান্তিরক্ষী বাহিনীর সদস্যরা।

শুক্রবার (২৯ জানুয়ারি) রাতে আন্তঃবাহিনী জনসংযোগ পরিদফতরের (আইএসপিআর) এক সংবাদ বিজ্ঞপ্তিতে এ তথ্য জানানো হয়।

এতে জানানো হয়, অভিযানকালে আইইডি বিস্ফোরণে বাংলাদেশি শান্তিরক্ষীদের একটি এল এ বি (সাজোয়া বহর) আংশিক ক্ষতিগ্রস্ত হয় এবং তিন বাংলাদেশি শান্তিরক্ষী আহত হন। আহত শান্তিরক্ষীরা হলেন- ল্যান্স কর্পোরাল আলিমুজ্জামান (৪ই বেঙ্গল), সৈনিক মো. মোস্তাফিজুর রহমান (৩৪ বীর) এবং সাইদুল আলম (৩৪ বীর)।

বিজ্ঞপ্তিতে এতে আরও জানানো হয়, বাংলাদেশি শান্তিরক্ষীরা পাল্টা আক্রমণ করে সন্ত্রাসীদের প্রতিহত করে এবং পালিয়ে যেতে বাধ্য করে। এসময় আহত শান্তিরক্ষীদের দ্রুত হেলিকপ্টারযোগে মপতি এলাকার জাতিসংঘের লেভেল-২ হাসপাতালে নেয়া হয়। পরে তাদের সেনেগালের ডাকার শহরে অবস্থিত জাতিসংঘের লেভেল-৩ হাসপাতালে স্থানান্তর করা হয়। বর্তমানে তারা নিবিড় পর্যবেক্ষণে আছেন।

বাংলাদেশের শান্তিরক্ষীদের এ বীরত্বপূর্ণ ও দুঃসাহসিক অভিযান মিশন সদর দফতরসহ সর্বমহলে ভূয়সী প্রশংসা অর্জন করেছে। মালিতে অবস্থিত বাংলাদেশের অন্যান্য শান্তিরক্ষীগণ নিরাপদে আছেন বলেও বিজ্ঞপ্তিতে জানানো হয়েছে।


আরও সংবাদ