মঙ্গলবার, ১৮ মে ২০২১, ০৪:৪৪ অপরাহ্ন
শীর্ষ সংবাদ
৫০০ গৃহকর্মী ও ৮১ তৃতীয় লিঙ্গের মানুষ পেলেন প্রধানমন্ত্রীর উপহার ৭ মে – শেখ হাসিনার স্বদেশ প্রত্যাবর্তন : গণতন্ত্র পুনরুদ্ধার দিবস যে যেখানে আছে সেখানেই ঈদ : ‘নবসৃষ্ট অবকাঠামো ও জলযান’ উদ্বোধন অনুষ্ঠানে প্রধানমন্ত্রী জাহাঙ্গীরনগরের দেয়ালগুলো যেভাবে রঙিন হলো সংসদ ভবনে হামলার পরিকল্পনায় গ্রেফতার ২ : নেপথ্যে হেফাজত অনিয়মের বিরুদ্ধে সাবধান করলেন প্রধানমন্ত্রী খালেদা জিয়ার আল্টিমেটামের পরেই হেফাজতের তাণ্ডব সারদেশে প্রধানমন্ত্রীর উপহার পেলেন শ্রমিক, ইমাম, ভ্যানচলক : আশ্রয়হীদের জন্য সরকারি ঘর উগ্রতার দায়ে স্থায়ীভাবে বন্ধ করে দেওয়া হল কঙ্গনার টুইটার অ্যাকাউন্ট বিচ্ছেদের আগেই সম্পত্তি ভাগাভাগির চুক্তি !

এবার হেফাজত নেতাদের দ্বারা বলৎকারের পর শিশু হত্যা

সুভাষ হিকমত
আপডেট : সোমবার, ১২ এপ্রিল, ২০২১

কুমিল্লায় মাদ্রাসা থেকে এক শিশু শিক্ষার্থীর মরদেহ উদ্ধার করা হয়েছে।

রোববার রাত ৮ টায় নগরীর ১৬ নং ওয়ার্ড সংরাইশ পাকপাঞ্জতান মুজিবীয়া সুন্নিয়া হাফেজিয়া মাদ্রাসা ও এতিমখানা থেকে শিশুটির মরদেহ উদ্ধার করা হয়।

সাত বছর বয়সী শিশুটির নাম সাব্বির হোসেন সজিব। তার বাড়ী আদর্শ সদর উপজেলার জগন্নাথপুর ইউনিয়নে ।

বিষয়টি নিশ্চিত করেছেন কোতয়ালি মডেল থানার ভারপ্রাপ্ত কর্মকর্তা (ওসি) মো. আনোয়ারুল হক।

শিশুটির মা ফুলমতী বেগম জানান, তার ২ ছেলে ৩ মেয়ের মধ্যে সজিব বড় সন্তান। ৩ মাস আগে তিনি ছেলেকে মাদ্রাসায় ভর্তি করেন। মাসে ৫০০ টাকা বেতন। রোববার সন্ধ্যায় তিনি সজিবের জন্য খাবার নিয়ে মাদ্রাসায় আসেন।

তখন ছেলেকে না দেখে জিজ্ঞেস করলে মাদ্রাসার প্রধান শিক্ষক জোনাইদ আহমেদ বলেন, সজিবকে ছুটি দিয়েছেন। তখন তিনি বলেন, সজিব তো বাড়ি যায়নি। পরে মাদ্রাসার ভেতর লেপ-তোশকের স্তূপে সজিবের মরদেহ দেখতে পান তিনি।

 

খবর পেয়ে কুমিল্লার অতিরিক্ত পুলিশ সুপার ( সদর সার্কেল) মো. সোহান সরকার ঘটনাস্থল পরিদর্শন করেন। তিনি বলেন, আমি এখনও নিশ্চিত না কীভাবে শিশুটি মারা গেছে। তবে আমরা মাদ্রাসার প্রধান শিক্ষকসহ মোট তিনজন শিক্ষককে জিজ্ঞাসাবাদের জন্য থানায় এনেছি। শিশুটির মরদেহ উদ্ধার করে থানায় নিয়ে আসা হয়েছে।

 

তবে এলাকাবাসীর অভিযোগ, শিশুটিকে বলৎকার করে হত্যা করা হয়েছে এবং অভিযুক্ত মাদ্রাসার শিক্ষররা সব হেফাজতেরনেতা।


আরও সংবাদ