মঙ্গলবার, ২৯ সেপ্টেম্বর ২০২০, ০৭:২৭ পূর্বাহ্ন
শীর্ষ সংবাদ
শেখ হাসিনাকে জন্মদিনে মোদী পাঠালেন ফুল, চীনের শুভেচ্ছা জ্ঞাপন পঁচাত্তরের খুনিদের দায়মুক্তি অধ্যাদেশ “ধর্ষিত” মামুনের স্ক্রিনশপ জালিয়াতি ফাঁস : ইলিয়াস সহ সুশীলদের কটাক্ষ জাতিসংঘে বঙ্গবন্ধুর ভাষণ : বিশ্ব সভায় বাংলা ভাষার প্রথম আনুষ্ঠানিক প্রতিনিধিত্ব গার্ডিয়ানে প্রকাশিত শেখ হাসিনার নিবন্ধ: ‘আ থার্ড অফ মাই কান্ট্রি ওয়াজ জাস্ট আন্ডারওয়াটার। দ্য ওয়ার্ল্ড মাস্ট অ্যাক্ট অন ক্লাইমেট’ হেফাজতের কর্তৃত্ব যাচ্ছে দেওবন্দের কাফের ঘোষিত জামায়াতের কব্জায় ! অনলাইনে মিলছে টিসিবির পেঁয়াজ আজ টিউলিপ সিদ্দিকের জন্মদিন বাংলাদেশের সঙ্গে রাজনৈতিক ও বাণিজ্যিক সম্পর্ক বাড়াতে চায় যুক্তরাষ্ট্র প্রধানমন্ত্রীকে যুক্তরাষ্ট্রের প্রতিরক্ষামন্ত্রীর ফোন

জলবায়ু প্রকল্পে ১২৫ কোটি ডলারের তহবিল বৃদ্ধি এডিবির: দুটি বন্ড ছাড়া হচ্ছে

ইবার্তা ডেস্ক
আপডেট : বৃহস্পতিবার, ৩ আগস্ট, ২০১৭
টেকসই উন্নয়ন

ইবার্তা ডেস্ক রিপোর্ট: জলবায়ু পরিবর্তনের প্রভাব মোকাবেলা ও প্রকল্প বাস্তবায়নে ৫ বছর মেয়াদী ডুয়াল-ট্রান্স ও ১০ বছর মেয়াদী গ্রীন বন্ডস ইস্যু করে এশিয়ান উন্নয়ন ব্যাংক (এডিবি) জলবায়ু রক্ষায় অর্থ জোগাড় করবে। ৭৫ কোটি ডলার ও ৫০ কোটি ডলার। এর মাধ্যমে ১২৫ কোটি ডলারের তহবিল বৃদ্ধি করতে চায় এডিবি। গতকাল বুধবার এডিবির সদর দপ্তর ফিলিপাইনের ম্যানিলা থেকে  প্রকাশিত এক সংবাদ বিজ্ঞপ্তিতে এ কথা বলা হয়েছে।

এডিবি ট্রেজারার পিয়েরে ভ্যান পিটেঘেম বলেন, ‘ক্রমবর্ধমান গ্রীন বন্ড চাহিদার প্রেক্ষিতে এডিবি দ্বিতীয় ডুয়াল-ট্রান্স ও প্রথম ৫ বছর মেয়াদী গ্রীন বন্ড প্রস্তাবে সাড়া দিয়েছে।’ তিনি বলেন, এর মাধ্যমে আমরা বিভিন্ন স্তরের যোগ্য ও সক্রিয় বিনিয়োগকারীর কাছে পৌঁছাতে পারবো। আর এভাবেই আমরা জলবায়ু পরিবর্তনের প্রভাব বুঝতে সক্ষম উদীয়মান বিনিয়োগকারীদের কাছে পৌঁছতে চাই।

এই গ্রীন বন্ড তহবিল এডিবির সাধারণ পুঁজি বাজারের অর্থায়নে স্বল্প-কার্বন ও জলবায়ু সংক্রান্ত প্রকল্পে সহায়তা করবে এবং কার্যক্রম পরিচালনায় ব্যবহৃত হবে।

২০১৫ সালে এডিবি ঘোষণা দেয়, ২০২০ সালের মধ্যে জলবায়ু সংক্রান্ত বার্ষিক অর্থায়ন তহবিল দ্বিগুণ হয়ে ৬০০ কোটি ডলার হবে। এই দশকের শেষে জলবায়ু পরিবর্তন তহবিলে এডিবির অর্থায়ন শতকরা প্রায় ৩০ ভাগে উন্নীত হবে।

এডিবি সূত্র জানায়,এই ৬০০ কোটি ডলারের মধ্যে ৪০০ কোটি ডলার নবায়নযোগ্য বিদ্যুৎ, বিদ্যুৎ খাতের উন্নয়ন, টেকসই পরিবহন ও স্মার্ট সিটি নির্মাণ এবং অবশিষ্ট ২০০ কোটি ডলার আরো অবকাঠামো নির্মাণ, ক্লাইমেট-স্মার্ট জলবায়ু সহনশীল কৃষি ও জলবায়ু সংক্রান্ত দুর্যোগ প্রস্তুতির কাজে ব্যবহার করা হবে।


আরও সংবাদ