শনিবার, ২৪ অক্টোবর ২০২০, ০৫:৫৮ পূর্বাহ্ন

কিশোরগঞ্জে অবৈধ ড্রেজার বন্ধের দাবিতে মানববন্ধন। সাংসদ ও মেয়রের বিরুদ্ধে ক্ষোভ প্রকাশ।

ইবার্তা ডেস্ক
আপডেট : শুক্রবার, ১৫ সেপ্টেম্বর, ২০১৭

কিশোরগঞ্জ জেলার বাজিতপুর উপজেলাধীন মাইজচর গ্রামের পূর্বদিকের ফসলী জমির মাঠ সংলগ্ন কোলা নদী, মেঘনা নদীর মোহনা, কাইমারবালী চরসহ নদীর বিভিন্ন পয়েন্ট থেকে অবৈধ উপায়ে কিশোরগঞ্জ-৫ আসনের সাংসদ জনাব আফজাল হোসেন ও তার সহোদর বাজিতপুর পৌরসভার মেয়র আনোয়ার হোসেন আশরাফ এর মদদে কতিপয় প্রভাবশালী ব্যক্তিগণ বিগত ০৮ বছর যাবত বালু উত্তোলন করা হচ্ছে। এমতাবস্থায় এলাকাবাসীর শেষ সম্বল ভিটেটুকু রক্ষার দাবিতে গতকাল সকাল ১১:০০ ঘটিকায় মাইজচর ইউনিয়নের সাধারন জনগণ বালু উত্তোলনের অবৈধ ড্রেজার চিরতরে বন্ধের দাবিতে জাতীয় প্রেসক্লাবের সামনে মানববন্ধন করেন।

মানববন্ধনে উপস্থিত ছিলেন কিশোরগঞ্জ জেলা আওয়ামীলীগের সহ-সভাপতি বাজিতপুর উপজেলা আওয়ামীলীগের সাবেক আহ্বায়ক ও সাবেক উপজেলা চেয়ারম্যান এডঃ শেখ নুরুন্নবী বাদল, জেলা কৃষকলীগের সহ-সভাপতি ফারুক আহাম্মদ, বাজিতপুর উপজেলা যুবলীগের সভাপতি গোলাম রসুল দৌলত, কেন্দ্রীয় যুবলীগের সাবেক সদস্য রেজাউল হক কাজল, বাজিতপুর উপজেলা আওয়ামীলীগের সাবেক যুগ্ম আহ্বায়ক রকিবুল হাসান শিবলী, মাইজচর ইউনিয়ন আওয়ামীলীগের সাবেক সভাপতি মোঃ মোবারক হোসেন, সরারচর ইউনিয়ন আওয়ামীলীগের সভাপতি আঃ কাদির, কৈলাগ ইউনিয়ন আওয়ামীলীগের সাবেক সাধারন সম্পাদক আসাদুজ্জামান হেলাল, বাজিতপুর পৌরসভার কৃষকলীগ নেতা নজরুল ইসলাম জজ মিয়াসহ বাজিতপুর ও নিকলী উপজেলার সর্বস্তরের সাধারণ জনগণ। মানববন্ধনে বক্তারা বাজিতপুর ও নিকলী উপজেলার নদীর সবগুলো পয়েন্ট থেকে বালু উত্তোলনের অবৈধ ড্রেজার চিরতরে বন্ধ করার জন্য প্রধানমন্ত্রী জননেত্রী শেখ হাসিনা, মহামান্য রাষ্ট্রপতি মোঃ আঃ হামিদ এবং জনপ্রশাসনমন্ত্রী সৈয়দ আশরাফুল ইসলামের সুদৃষ্টি কামনা করেন।

উল্লেখ্য, বাংলাদেশের বর্তমান প্রধানমন্ত্রী জননেত্রী শেখ হাসিনা ১৯৯২ সালে প্রলয়ংকারী ঘূর্ণিঝড়ে বিধ্বস্ত মাইজচর গ্রাম পরিদর্শনে এসেছিলেন।

: প্রেসবিজ্ঞপ্তি


আরও সংবাদ