শুক্রবার, ১৪ অগাস্ট ২০২০, ০৫:৫১ অপরাহ্ন

নর্থ সাউথের শিক্ষক সিজার কি আত্মগোপনে? চারদিনেও খোঁজ মেলেনি প্রকাশক করিমের

ইবার্তা ডেস্ক
আপডেট : রবিবার, ১২ নভেম্বর, ২০১৭

নর্থ সাউথ বিশ্ববিদ্যালয়ের শিক্ষক মোবাস্বার হাসান সিজার নিখোঁজের ঘটনায় নানা প্রশ্ন দেখা দিয়েছে। তার পরিবারের সদস্যদের দাবি আইন শৃঙ্খলা বাহিনী তাকে নিয়ে গেছে। আইন শৃঙ্খলা বাহিনীর কোন সূত্র বিষয়টি নিশ্চিত করেনি। তবে একটি সূত্র বলছে তিনি আত্মগাপনে যেতে পারেন। সিজারের বাবা মোতাহার হোসেন বলেন, গত মঙ্গলবার সকাল ৭টায় বাসা থেকে বের হয় সিজার। সন্ধ্যার পর থেকে তার ফোন বন্ধ পেয়ে আত্মীয়-স্বজন, বন্ধুবান্ধব ও নর্থ সাউথ বিশ্ববিদ্যালয়েও খোঁজ নেয়া হয়। কিন্তু কোথাও সিজারের সন্ধান না পেয়ে রাতে খিলগাঁও থানায় গিয়ে একটি সাধারণ ডায়েরি (জিডি) করেন তিনি। পরদিন বুধবার সকালে র‌্যাব-৩ কার্যালয়ে একটি লিখিত অভিযোগ করা হয়।

পরিবারিক সূত্রে জানা গেছে, সিজারের সাবেক স্ত্রী আদালতে একটি মামলা দায়ের করেছেন। আগামী ১৫ নভেম্বর আদালতে তার হাজির হওয়ার তারিখ রয়েছে। এছাড়া তাকে কেউ হুমকিও দেয়নি।

সূত্র জানায়, প্রধানমন্ত্রীর কার্যালয়ের একসেস টু ইনফরমেশন (এটুআই) প্রকল্পের সঙ্গে জড়িত ছিলেন সিজার। এ নিয়ে কোন একটা ঝামেলা হয়। এ কারনে নিজেই আত্মগোপনে গিয়েছেন। খিলগাঁও থানার ওসি মশিউর রহমান সিজারের পরিবারের বরাত দিয়ে জানান, গত মঙ্গলবার বিশ্ববিদ্যালয়ে ক্লাস নেয়ার পর দুপুরে প্রধানমন্ত্রীর কার্যালয়ের একসেস টু ইনফরমেশন (এটুআই) প্রকল্পের মিটিংয়ে যোগ দিতে আগারগাঁওয়ের আইডিবি ভবনে যান। এর পর থেকে সিজার নিখোঁজ রয়েছেন। সিজার বাংলাদেশের রাজনীতি ও ইসলাম বিষয়ক গবেষণা করেছিলেন। সর্বশেষ সমাজে জঙ্গিবাদের বিস্তারের বিষয়ে গবেষণারত ছিলেন তিনি।

এদিকে রাজধানীর গুলশান থেকে নিখোঁজ প্রকাশক তানভীর ইয়াসিন করিমের খোঁজ মেলেনি চারদিনেও। পুলিশ বলছে, তারা এই বিষয়ে কিছু জানেন না। ফ্ল্যাট বাড়ি বন্ধ করে লাপাত্তা রয়েছেন তার পরিবার সদস্যরা।

বাড়ির নিরাপত্তাকর্মীরা জানিয়েছেন, প্রকাশককে নিয়ে যাওয়ার পর প্রত্যক্ষদর্শী ওই বাসার এক নিরাপত্তাকর্মীকে ছুটিতে পাঠানো হয়েছে। কে বা কারা তাকে তুলে নিয়ে গেছে, সে ব্যাপারে কোন তথ্য নেই কারো কাছে। এ বিষয়ে কোন জিডি হয়নি গুলশান থানায়।


আরও সংবাদ