[…]ভন্ড পীর গ্রেফতার : নারীদের সঙ্গে শারীরিক সম্পর্ক ও ব্ল্যাকমেইল […]ভন্ড পীর গ্রেফতার : নারীদের সঙ্গে শারীরিক সম্পর্ক ও ব্ল্যাকমেইল

ভন্ড পীর গ্রেফতার : নারীদের সঙ্গে শারীরিক সম্পর্ক ও ব্ল্যাকমেইল

ইবার্তা টুয়েন্টিফোর ডটকম:
আপডেট সময়:আগস্ট ৩, ২০১৭ , ৮:০৭ পূর্বাহ্ন
বিভাগ: ভিডিও

প্রতারণার অভিযোগে খিলগাঁওয়ের তিলপাপাড়া থেকে ৩১ জুলাই সোমবার আহসান হাবিব পেয়ার (২৫) নামে এক ভন্ড পীরকে গ্রেফতার করেছে পুলিশের কাউন্টার টেররিজম ইউনিট। অতিরিক্ত উপ-কমিশনার নাজমুল ইসলাম জানান, জ্বিন তাড়ানোর নামে নারীদের সঙ্গে শারীরিক সম্পর্ক করে তার ভিডিওচিত্র ব্যবহার করে অর্থ হাতিয়ে নেওয়ার অভিযোগে তাকে গ্রেপ্তার করেছে পুলিশ।

জানা গেছে, পেয়ার নিজেকে পীর দাবি করত এবং জ্বিন তাড়ানোর কথা বলে বহু নারীর সঙ্গে শারীরিক সম্পর্ক গড়ে তাদের কাছ থেকে অর্থ আদায় করত। পেয়ার নিজেকে ইন্ডিপেনডেন্ট টিভির সাংবাদিক ও একটি অনলাইন টেলিভিশন স্টেশনের মালিক হিসেবে পরিচয় দিত।

পেয়ারের ইউটিউব চ্যানেলের নাম ahp tv নামে একটি ্ইউটিউব চ্যানেল আছে। চ্যানেলটিতে সাবস্ক্রাইবার রয়েছে ৮৫ হাজার ৭১। এছাড়া তার ফেসবুক আইডিতে ফলোয়ার সংখ্যা ২ লাখ ৩৪ হাজার এবং পেইজের ফ্যান সংখ্যা ২ লাখ ১৮ হাজার প্লাস।

দরিদ্র ও রোগীদের নিয়ে এবং দর্শক আকৃষ্ট করতে চটকদার নাম ব্যবহার করে ভিডিও প্রচার করতো পেয়ার। তার বিরুদ্ধে অভিযোগগুলো সত্য বলে প্রমাণ পাওয়া যাচ্ছে। কয়েকজন ভূক্তভোগী নারী তার অপকর্মের বিবরণ দিয়েছেন। তারা বলেন, ইসলামের প্রচার, দরিদ্রদের সহায়তা, ঝাড় ফুক ও জ্বিন তাড়ানোর কথা বলে সে মানুষের সাথে সম্পর্ক গড়ে তুলতো যা পরবর্তিতে অনৈতিক সম্পর্কে পরিণত হয়। এসব ভিডিও করে অনেকের কাছে লাখ লাখ টাকা নেয়ার অভিযোগ করেছেন তারা।

আহসান হাবিব পেয়ারের গ্রামের বাড়ি নোয়াখালী। চট্টগ্রামের একটি মাদ্রাসায় কিছুদিন পড়ে হাটহাজারী মাদ্রাসায় ভর্তি হয়েছিল কিন্তু সমকামিতার অভিযোগে তাকে সেখান থেকে বহিষ্কার হয়।

এদিকে তার গ্রেফতারের সংবাদ প্রকাশের পর সোশ্যাল মিডিয়ায় পেয়ারের বিভিন্ন অপকর্মের অশ্লীল ছবি প্রকাশিত হচ্ছে।